Home / CPD in the Media / Dr Debapriya Bhattacharya on SDG in BILIA seminar

Dr Debapriya Bhattacharya on SDG in BILIA seminar

Published in প্রথম আলো on Sunday, 10 January 2016

 

এসডিজি নিয়ে বিলিয়ার আলোচনা

আইনগুলোর যাচাই–বাছাই দরকার

Dr Debapriya Bhattacharya  BILIAজাতিসংঘ অনুমোদিত টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্য বা এসডিজি অর্জন করতে হলে সেই আলোকে দেশের আইনগুলোকে যাচাই-বাছাই করা প্রয়োজন বলে মন্তব্য করেন গবেষণা প্রতিষ্ঠান সেন্টার ফর পলিসি ডায়ালগের (সিপিডি) বিশেষ ফেলো ড. দেবপ্রিয় ভট্টাচার্য।

দেবপ্রিয় বলেন, ‘দেশে যত আইন আছে, সেগুলোকে অবশ্যই টেকসই উন্নয়নের দৃষ্টিকোণ থেকে বিচার করে দেখতে হবে। একই সঙ্গে আইনের ব্যবহারের ক্ষেত্রে অধিকার সংরক্ষণ ও অন্যদের মোকাবিলায় কার্যকর পদক্ষেপ নিতে হবে।’

ঢাকায় বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ল অ্যান্ড ইন্টারন্যাশনাল অ্যাফেয়ার্স (বিলিয়া) মিলনায়তনে গতকাল শনিবার এক আলোচনা সভায় দেবপ্রিয় ভট্টাচার্য এসব কথা বলেন। ‘বাণিজ্য, আইন, বিনিয়োগ এবং টেকসই উন্নয়ন’ শীর্ষক এই আলোচনার আয়োজন করে বিলিয়া।

বিলিয়ার সম্মানীয় পরিচালক ও সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী শাহদীন মালিক বলেন, ‘ইদানীং দেখা যাচ্ছে, যে ক্ষেত্রে যাদের বিশেষ দক্ষতা ও অভিজ্ঞতা আছে, তাদের সেই ক্ষেত্রে কাজে লাগানো হচ্ছে না। অযোগ্যদের সেই জায়গায় বসানো হচ্ছে। ফলে সার্বিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয় দেশ।’

আলোচনায় দুটি প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগের শিক্ষিকা রুমানা ইসলাম ও অস্ট্রেলিয়ার কার্টিন ইউনিভার্সিটির শিক্ষক শারমিন তানিয়া।

অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন, উন্নয়নশীল দেশেই বিদেশি বিনিয়োগকারীরা আসেন। তবে আমন্ত্রণকারী দেশ আন্তর্জাতিক বিনিয়োগ ও বাণিজ্য আইনে পারদর্শী না হলে ক্ষতিগ্রস্ত হয়। এ ক্ষেত্রে স্বীকৃত যেসব অধিকার আছে, তা আইনের মধ্যে আনতে পারলে বিদেশি বিনিয়োগ নিয়ন্ত্রণে আনা সম্ভব। তা ছাড়া আন্তর্জাতিক ট্রাইব্যুনালের সালিসি ব্যবস্থায় লড়তে দক্ষ আইনজীবীদের নিয়োগ করতে হবে।

আলোচনা সভায় সুপ্রিম কোর্টের জ্যেষ্ঠ আইনজীবী এম কে রহমান, সিপিডির অতিরিক্ত গবেষণা পরিচালক খন্দকার গোলাম মোয়াজ্জেম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

 

 

 

Comments

Check Also

the_role_of_youth_in_achieving_sdgs

The Role of Youth in Achieving SDGs

Dr. Debapriya Bhattacharya. Distinguished Fellow, Centre for Policy Dialogue put emphasis on the youth because they are a source of energy and are, on average, 1 out of every 6 person in the world.

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *